Ad Code

Responsive Advertisement

চলতি মাসেই শুরু হতে যাচ্ছে দক্ষিণ চরিলাম এ এলপিজি গ্যাস এজেন্সি - Sabuj Tripura News

সবুজ ত্রিপুরা 
১২ ডিসেম্বর ২০২০  
শনিবার

বিশালগর প্রতিনিধিঃ দীর্ঘ প্রতীক্ষার অবসান শেষ। সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে চলতি মাসেই দক্ষিণ চরিলাম চৌমুনী পাড়ায় শুরু হতে যাচ্ছে হিন্দুস্থান পেট্রোলিয়াম এর এলপিজি অর্থাৎ লিকুইড পেট্রোলিয়াম গ্যাস এজেন্সি।চরিলাম এর জনমনে খুশির হাওয়া।চরিলাম এর জনগণকে আর এলপিজি গ্যাস সিলিন্ডার এর জন্য বিশালগড় এবং বিশ্রামগঞ্জ এ দৌড়াতে হবে না। দক্ষিণ চরিলাম চৌমুনী পাড়াতে গিয়েই এলপিজি সিলিন্ডার আনতে পারবেন। দ্রুতগতিতে সমস্ত কাজ শেষ। এলপিজি গোডাউন সিলিন্ডার কাটা শোরুম এবং অফিস সমস্ত কাজ শেষ। 


শুধুমাত্র ২ থেকে তিনটি এনওসি পাওয়ার বাকি। সমস্ত কাগজপত্র জমা দেওয়া আছে। এই এনওসি গুলি অর্থাৎ নো অবজেকশন সার্টিফিকেট গুলি পেয়ে গেলেই শুরু হয়ে যাবে গ্যাস এজেন্সি। দক্ষিণ চরিলাম ভায়া হেরমা রোডের পাশে চৌমুনী পাড়াতে মাথা তুলে দাঁড়িয়েছে হিন্দুস্থান পেট্রোলিয়াম এর এলপিজি গ্যাস এজেন্সি। চেচুড়ী মাই গ্রামের গীতা দেবনাথের নামে এই গ্যাস এজেন্সি বলে জানিয়েছেন এজেন্সির সাথে যুক্ত এক ব্যক্তি। উনি আরো জানিয়েছেন গ্রাহকের কোন লিমিট নেই। যত গ্রাহক হবে কোম্পানি দেবে সিলেন্ডার। 


পূর্বে চরিলাম এর গ্রাহকরা যারা বিশালগড় এবং বিশ্রামগঞ্জ গ্যাস এজেন্সি থেকে গ্যাস সিলিন্ডার আনতেন তারা তাদের এসবি কাগজ টি জমা দিয়ে ন্যূনতম একটা ফিস দিয়ে ট্রানস্ফার করে নিয়ে আসতে পারবেন এই গ্যাস এজেন্সি তে। প্রবীনদের বক্তব্য ২০০০ সালে দক্ষিণ চরিলাম এই চৌমুনী পাড়াতেও উগ্রপন্থীর ভয় অনেক মানুষ বাড়িঘর ফেলে দিয়ে উত্তর চরিলাম মধ্যপাড়া এলাকায় এসে বসবাস করতে শুরু করেছিলেন। সন্ধ্যা হলেই উগ্রপন্থীর ভয় দক্ষিণ চরিলাম চৌমুনী পাড়া নিস্তব্ধ হয়ে যেত। শ্মশানের নীরবতা বিরাজ করতো। আজ দক্ষিণ চরিলাম চৌমুনী পাড়াতে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে এলপিজি গ্যাস এজেন্সি। খুশির লহর চরিলাম এর জনগণের মধ্যে। কর্মকর্তারা জানিয়েছেন জায়গা ভাড়া নিয়ে নয় একেবারেই প্রায় দেড় কানি জায়গা খরিদ করে এই গ্যাস এজেন্সি গড়ে তোলা হয়েছে। 


এই গ্যাস এজেন্সি দক্ষিণ চরিলাম চৌমুনী পাড়াতে হওয়ার ফলে এই জায়গার মূল্য ১০০ গুণ বেড়ে গিয়েছে বলে এলাকাবাসীদের বক্তব্য। দক্ষিণ চরিলাম এই চৌমুনী পাড়াতে এই গ্যাস এজেন্সি থেকে ঢিলছোড়া দূরত্বে তৈরি হচ্ছে বিশাল বড় ইলেকট্রিক অফিস। অনেকেরই অভিমত ধীরে ধীরে দক্ষিণ চরিলাম শহরে পরিণত হচ্ছে। কোনদিন মানুষ ভাবে নি এই জায়গায় গ্যাস এজেন্সি হবে। চরিলাম এর জনগণ চাইছে এই মাসেই চালু হোক গ্যাস এজেন্সি।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য

Close Menu