ইতালিতে বাড়ি মিলছে এক ইউরোতে- Sabuj Tripura News

সবুজ ত্রিপুরা
২৬ এপ্রিল
সোমবার
বিশেষ প্রতিনিধি:- ইতালির সিসিলি শহর কর্তৃপক্ষ এক কাপ কফির দামে বাড়ি বিক্রির প্রস্তাব দিয়েছে। মার্কিন সম্প্রচারমাধ্যম সিএনএন’র প্রতিবেদন থেকে জানা গেছে, কাস্তিগলিয়োন ডি সিসিলি নামের ওই শহরটি মাউন্ট এটনা পর্বতের খাঁজে অবস্থিত। সিসিলির পূর্ব উপকূলের এই শহরে খালি পড়ে রয়েছে প্রায় নয়শ’ পরিত্যক্ত বাড়ি।বেশিরভাগ বাড়িই শহরের পুরনো অংশে পড়ে রয়েছে। সিএনএন বলছে, প্রায় অর্ধেক বাড়ি ধ্বংসপ্রাপ্ত হয়ে যাওয়ায় এগুলো প্রতীকী দাম এক ইউরোর বিনিময়ে বিক্রি করে দেওয়া হবে। 
বাকিগুলো আরেকটু ভালো অবস্থায় থাকলেও সেগুলোও সস্তায় বিক্রি হবে। চারশ’ থেকে পাঁচশ’ ইউরোর বিনিময়ে মিলবে এই বাড়িগুলো।উনিশ শতকে শহরটিতে প্রায় ১৪ হাজার মানুষের বসত থাকলেও সম্প্রতি সেখানকার মানুষের সংখ্যা নেমে এসেছে তিন হাজারে। সেখানে নতুন করে প্রাণ সঞ্চারের উচ্চাকাঙ্ক্ষী প্রজেক্ট নিয়েছেন মেয়র অ্যান্তোনিও কামারদা। তিনি বলেন, ‘আমাদের উদ্ধার করার মতো বিপুল পরিমাণ প্রকৌশলগত ঐতিহ্য রয়েছে, যা ইতিহাস সমৃদ্ধ। সময়ের পরিক্রমায় বহু মানুষ চলে গেছে, ছেড়ে গেছে পুরনো, ছবির মতো বাড়ি, এর অনেকগুলোই রেঁনেসারও আগের।’ইতালির আরও কয়েকটি শহর একই ধরনের প্রজেক্টে এক ইউরোর বিনিময়ে বাড়ির সঙ্গে কাজেরও সুযোগ দিচ্ছে। কিন্তু কাস্তিগলিয়োন ডি সিসিলি সম্পত্তিগুলোর মূল্য নির্ধারণ করছে সেগুলোর অবস্থার ওপর ভিত্তি করে। মেয়র বলেন, ‘আমরা ম্যাপ এবং ভূমি রেজিস্ট্রেশন তথ্যের ওপর ভিত্তি করে প্রতিটি সম্পত্তির নিবিড় জরিপ চালিয়েছি। সেগুলোর অবস্থা অনুযায়ী ভবনগুলো বিভিন্ন দামে বিক্রি হবে, দাম শুরু হবে এক ইউরো থেকে।’ একই সম্পত্তি নিয়ে একাধিক মানুষের আগ্রহ থাকলে দাম নির্ধারণ হবে নিলামে।
এই বছরের মার্চে শুরু হওয়া প্রকল্পটি এই ধরনের সবচেয়ে বড় প্রকল্প। নূন্যতম সংস্কারের মাধ্যমে বসবাস উপযোগী করা সম্ভব এমন অন্তত চারশ’ বাড়ি এই প্রজেক্টে বিক্রি হবে।প্রকল্পটি তদারকি করতে গঠন করা হয়েছে একটি স্পেশাল টাস্কফোর্স। এই টাস্কফোর্স সম্ভাব্য ক্রেতাদের সঙ্গে যোগাযোগ ও বাড়ি সংস্কারে কাজ করবে। মেয়র জানান, তারা ইতোমধ্যে সারা দুনিয়া থেকে বিনিয়োগকারীসহ বিভিন্ন মানুষের ইমেইল পেতে শুরু করেছেন।ক্রেতাদের তিন বছরের মধ্যে অবশ্যই সংস্কার কাজ শেষ করতে হবে। তবে এই কাজের গ্যারান্টি হিসেবে কোনও অর্থ জমা দিতে হবে না। এর পরিবর্তে নতুন ক্রেতারা ব্যাংক থেকে চার হাজার ইউরোর একটি ইন্স্যুরেন্স পলিসি নিতে পারবেন। এতে নতুন ক্রেতার প্রতিবছর খরচ পড়বে একশ’ ইউরো।বাকি ইতালির তুলনায় সিসিলিতে স্থানীয় ট্যাক্সের পরিমাণ কম। এছাড়া ক্রেতারা ইতালি সরকারের ১১০ শতাংশ কর ছাড়ের সুবিধাও নিতে পারবে। বাড়ি সংস্কারের মাধ্যমে পরিবেশবান্ধব করে তোলার ক্ষেত্রে এই কর ছাড় দিচ্ছে দেশটির সরকার।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য

Close Menu