Ad Code

Responsive Advertisement

ব্যাংকের কর্মীর দ্বারা গ্রাহকদের জমা অর্থ রাশি নয়ছয়, অভিযোগ তেলিয়ামুড়া ইউকো ব্যাংকের অস্থায়ী কর্মীর উপর - Sabuj Tripura News

সবুজ ত্রিপুরা 
১৯ ডিসেম্বর ২০২০  
শনিবার

তেলিয়ামুড়া প্রতিনিধিঃ  ব্যাংকের অস্থায়ী কর্মীর দ্বারা গ্রাহকদের জমা অর্থ রাশি নয়ছয়ের অভিযোগ আনা হয়। তেলিয়ামুড়া শহরের উপকণ্ঠে ইউকো ব্যাংকের বাগান বাজারের একটি শাখা রয়েছে। এই ব্যাংকে গত শুক্রবার বিকেলে টাকা জমা দেওয়ার সময় চুরের হদিশ পাওয়া গেল। তেলিয়ামুড়া শহরের ফরেন লিকার শপ নং-১ -এর কর্ণধার সুরেন্দ্র লাল রায় ইউকো  ব্যাঙ্কে নিত্যদিন ই টাকা জমা রাখেন। কিন্তু টাকা দেওয়ার সময় সর্বদা টাকা কম হয়। 

এজন্য সুরেন্দ্র বাবু নিজ দোকানের কর্মচারী দের  সন্দেহ এবং দোষারোপ করেন, এবং দু-এক জন কর্মচারীকে দোষারোপ করে বাড়ি পাঠিয়ে দিয়েছেন ছাঁটাই করে।এদিকে সুরেন্দ্র বাবু নিজ টাকা শুক্রবার গুনে নিয়ে আসেন ইউকো ব্যাংকে টাকা জমা দেওয়ার জন্য। ক্যাশ কাউন্টারে নির্দিষ্ট পরিমাণ টাকা দেওয়ার পর ক্যাশ কাউন্টারে থাকা ব্যাংকের অস্থায়ী কর্মী উত্তম দেবনাথ নিদৃষ্ট টাকা গুনার ৭,০০০ টাকা(৫০০ টাকার প্রতিটি নোট) নয়ছয় করেন। পরে উওম সুরেন্দ্র বাবু কে  জানান নির্দিষ্ট পরিমান টাকা থেকে ৭০০০ টাকা কম রয়েছে।‌ 


তখন ব্যাংকের সিসিটিভি ক্যামেরায় ধরা পড়ে টাকা নয়ছয়ের ব্যাপারটি। প্রত্যক্ষ করা যায় ব্যাংকের অস্থায়ী কর্মী উত্তম দেবনাথ কম্পিউটারের কিবোর্ডের তলায় টাকা লুকিয়ে রাখছেন।পড়ে এ ব্যাপারটি ব্যাংকের ম্যানেজার প্রেম সিং -এর কাছে ঘটনা প্রসঙ্গে জানতে চাইলে তিনি জানান, ঘটনাটি তদন্ত করে উপযুক্ত ব্যবস্থা নেয়া হবে ঐ অস্থায়ী কর্মচারীর বিরুদ্ধে। 


ঘটনাটি ২৪ ঘন্টা অতিক্রান্ত হতে চললেও তেলিয়ামুড়া থানায় এ ব্যাপারে কোনো মামলা এখন পর্যন্ত রজু হয়নি।ব্যাংকের একটি সূত্র মারফত জানা গিয়েছে, ব্যাংকের শাখা সঞ্চালক ঘটনাটি মিটমাট করার জন্য জোর প্রচেষ্টা চালাচ্ছেন।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য

Close Menu