HeadLogo

পাচার বাণিজ্যর ভাগবাটোয়ারা নিয়ে দুই পক্ষের মধ্যে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ - Sabuj Tripura News

সবুজ ত্রিপুরা
১৪ জুলাই ২০২০
মঙ্গলবার      

বক্সনগর প্রতিনিধিঃ ঘটনার বিবরণে জানা যায় সোমবার রাত্র আনুমানিক আটটা নাগাদ আশা বাড়ি গ্রাম পঞ্চায়েতের ৭ নং ওয়ার্ডের দুপুরিয়াবান্দ এলাকার কবির হোসেনের বাড়িতে ব্যবসা সংক্রান্ত লেনদেনে 80 হাজার টাকার ভাগবাটোয়ারা নিয়ে একটি সালিশি সভা বসে এলাকার মাতব্বরদের নিয়ে। জানা যায় এই সালিশি সভায় কবির হোসেন নামে এক ব্যক্তি টাকা দিতে আপত্তি করতেই দুপুরিয়াবান্দ এলাকার  শুকুর মিয়া ও স্বপন মিয়ার মধ্যে প্রথমে হাতাহাতি হয় পরবর্তী সময়ে এর আকার বড় ধরনের হয়। 

ফলে দুই পক্ষের মধ্যে  ধারালো অস্ত্র দিয়ে মারাত্মক কোপাকুপি শুরু হয় এবং এতে জখম হয় ৩ জন ব্যবসায়ী। আহত হয় সালিশি সভায় থাকা মাতব্বরাও। উক্ত ঘটনায় মুহুর্তের মধ্যে এলাকায় চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে তাই খবর দেওয়া হয় কলমচৌড়া থানায়। পরিশেষে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে  এবং আহত দুই পক্ষের লোকজনকে বক্সনগর সামাজিক স্বাস্থ্য কেন্দ্রে নিয়ে আসে। 

সেখানের  কর্তব্যরত চিকিৎসক প্রাথমিক চিকিৎসা করে হাপানিয়া হাসপাতালে রেফার করে দেয় তাদের। জানা যায় মোট 6 জন জখম কারী কে রেফার করা হয়  ওদের প্রত্যেকের মাথায় আঘাত লাগে এবং ধারালো ছুরি দিয়ে পেটে আঘাত লাগে। তবে কলমচৌড়া থানায় দুই পক্ষ থেকে দুটি মামলা করা হয়। তাই পুলিশ রাতেই কবির হোসেনের তিন ভাই কে আটক করতে সক্ষম হন।  জানা যায় ধৃত তিন ভাই আশা বাড়িগ্রাম পঞ্চায়েতের শাসক দলের প্রধান মিনারা বেগমের স্বামীসহ দেবরসহ পাঁচজন। 

তাছাড়া বলা যায় বক্সনগর সীমান্তে দুদিন পরে পরে ব্যবসা নিয়ে দুই পক্ষের মধ্যে হয় সংঘর্ষ।ফলে সীমান্ত হয় অবাধ পাচার বাণিজ্য। এদিকে সালিশি সভা করতে যাওয়া এলাকার রহিম মিয়ার ছেলে নাজমুল হোসেন সহ তারা পাঁচ ভাই আহত এখন হাপানিয়া হাসপাতালে মৃত্যুর সাথে লড়াই করছে। তাই বর্তমানে  এই এলাকায় বিরাট পুলিশ বাহিনী মোতায়েন করা হয়েছে।

 

কোন মন্তব্য নেই