HeadLogo

ডাক্তার ও অ্যাম্বুলেন্স চালকের অবহেলায় মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন সেন্টু দাস অভিযোগ পরিবারের - Sabuj Tripura News

সবুজ ত্রিপুরা
০৪ ডিসেম্বর ২০২০  
শুক্রবার

বিশালগর প্রতিনিধিঃ এম্বুলেন্সে তেল নেই শেষ পর্যন্ত মধুপুর হাসপাতালের ডাক্তার পূজা সাহা এবং অ্যাম্বুলেন্স চালক সমীর হোসেন কে দায়ী করল মৃত রোগীর পরিবার আর তা নিয়ে চরম উত্তেজনা দেখা দেয় মধুপুর এলাকায়। ঘটনার বিবরণে জানা যায় গত তিন দিন পূর্বে মধুপুর হাসপাতাল চৌমুহনী এলাকায় সেন্টু দাস হূদরোগে আক্রান্ত হয়ে মধুপুর হাসপাতালে ভর্তি হন। 

কিন্তু কিছুক্ষণের মধ্যেই তার অবস্থার অবনতি হওয়ার পর পরিবারের পক্ষ থেকে কর্তব্যরত চিকিৎসক পূজা সাহার কাছে আকুলভাবে আবেদন রাখে সেন্টু দাস কে উন্নত চিকিৎসার জন্য অন্য কোথাও রেফার করার জন্য কিন্তু ডাক্তার পূজা সাহা সাফ জানিয়ে দেন যে এম্বুলেন্স এর মধ্যে তেল নেই সেই কারনে রেফার করা সম্ভব নয়। 


পরবর্তী সময়ে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ায় অ্যাম্বুলেন্স চালক এম্বুলেন্স নিয়ে আসলে এলাকার উত্তেজিত জনতা দেখতে পান সেই গাড়ির মধ্যে প্রচুর পরিমাণে তেল রয়েছে। যদিও পরবর্তী সময়ে সেই গাড়ি দিয়ে তাকে হাপানিয়া হাসপাতালে পাঠান। কিন্তু এখন পরিবারের বক্তব্য হল প্রায় তিন ঘন্টা সেখানে না রেখে যদি দ্রুত তাকে পাঠানো হত, তাহলে হৈতু সেন্টু দাস বেঁচে যেতেন।  


যার পরিপ্রেক্ষিতে শুক্রবার বিকেল বেলা মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন সেন্টু দাস। তাই পরিবার অভিযোগ করেন ডাক্তারের অবহেলা এবং অ্যাম্বুলেন্স চালক এবং সমীর হোসেনের অবহেলায় তার মৃত্যু হয়েছে আগামীকাল ডাক্তার এবং অ্যাম্বুলেন্স চালকের বিরুদ্ধে মামলা করার পরিকল্পনা হাতে নিয়েছেন উনারা।

কোন মন্তব্য নেই