HeadLogo

পিতা মাতা হারা অর্পিতা অনাথ হয়েও মাধ্যমিক পরীক্ষায় প্রথম বিভাগ - Sabuj Tripura News

সবুজ ত্রিপুরা
৭ জুলাই ২০২০
মঙ্গলবার  

তেলিয়ামুড়া  প্রতিনিধিঃ গোটা ত্রিপুরা রাজ্যের মানুষ যখন ত্রিপুরা মধ্যশিক্ষা পর্ষদ পরিচালিত মাধ্যমিক পরীক্ষার ফল প্রকাশের সাফল্য অর্জনকারী কৃতি সেরা ১০-এর তালিকায় নাম থাকা ছাত্র ছাত্রীদের নিয়ে  ব্যস্ত  ঠিক সেই  সময় সেই জায়গায় দাঁড়িয়ে মা বাবা ছাড়া অনাথ মেয়েটি ত্রিপুরা রাজ্য মধ্যশিক্ষা পর্ষদ পরিচালিত মাধ্যমিক পরীক্ষায় প্রথম বিভাগে পাশ করে সকলকে তাক লাগিয়ে দিয়েছে। 

জন্মসূত্রে যদিও তেলিয়ামুড়া মহকুমার মগবাড়ি এলাকায় জন্মগ্রহণ করেছিল মেয়েটি।কিন্তু চার বছর বয়সে বাবা মারা যায় এরপর কিছুদিন যেতে না যেতেই মাতৃস্নেহ থেকেও বঞ্চিত হয় মেয়েটি। তার পর এক নিকট আত্মীয় তাকে কোলে পিঠে করে মানুষ করলেও নিজের সংসারের ভরণপোষণ  যখন সেখানে  ভালো ভাবে জুটত না,  তখন বাবা মা হারা শিশুকে  পাঠিয়ে দিলো আগরতলার কোন এক ছাত্রী আবাসনে। 

সেখান থেকে মেয়েটি আগরতলার বিজয় কুমার দ্বাদশ শ্রেণী বিদ্যালয়ে পঠন পাঠন করে সেই স্কুলের শিক্ষার্থীসহ শিক্ষক শিক্ষিকাদের  সাহায্য নিয়ে ২০২০ সালের মাধ্যমিক পরীক্ষায় ৭০.৮ %(শতাংশ) নম্বর পায়। তাই বলা যায়  ইচ্ছাশক্তি থাকলে অতি দুঃখের মধ্যেও নিজের স্থান ধরে রাখা সম্ভব। আর সেই হতভাগ্য  মেধাবী ছাত্রী অর্পিতা রানী দাস  সংবাদ মাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে নিজ প্রতিক্রিয়ায় বলে যে শিক্ষার্থীসহ শিক্ষক শিক্ষিকা  সকলেই তাকে পড়াশোনার ব্যাপারে বিশেষভাবে সহযোগিতা করছেন। 


তাই তাদের এই সাহায্য সহযোগিতা পেয়ে সে আজ এত ভালো ফল করতে পেরেছে। ফলে এই অসহায় অনাথ অর্পিতার এত ভালো ফলাফল করায় খুশি তেলিয়ামুড়া মহাকুমা বাসী  সহ শিক্ষা অনুরাগী মহল।

কোন মন্তব্য নেই