HeadLogo

ত্রিপুরার রিয়াং শরণার্থীদের স্থায়ী বসবাসে ঐতিহাসিক সিদ্ধান্ত কেন্দ্রীয় সরকারের



সবুজ ত্রিপুরা, সংবাদমাধ্যম, ১৯ জানুয়ারী : মিজোরাম থেকে ত্রিপুরায় আগত রিয়াং শরণার্থীদের স্থায়ী সমস্যা সমাধানের লক্ষ্যে গত বৃহস্পতিবার কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের উপস্থিতিতে একটি ত্রি-পাক্ষিক চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। এই বৈঠকে দুই রাজ্যের উচ্চ পর্যায়ের আধিকারিক সহ রাজ্য সরকারের শরিক দল আইপিএফটি, মহারাজ প্রদ্যোত কিশোর দেববর্মণ এবং রিয়াং শরণার্থী সংগঠনের নেতৃত্বরা উপস্থিত ছিলেন। দীর্ঘ ২৩ বছর পর ত্রিপুরার ৫ টি শরণার্থী শিবিরে আশ্রয় নেওয়া রিয়াং শরণার্থীর ভাগ্য পরিবর্তিত হল।



এই বিষয়ে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী শ্রী অমিত শাহ জানান যে, এই সিদ্ধান্তের ফলে উপজাতি জনগণের লাভ হবে। শরণার্থী সমস্যা বৈঠকে উপস্থিত ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী শ্রী বিপ্লব কুমার দেব, মিজোরামের মুখ্যমন্ত্রী শ্রী জোরামথাঙ্গা, এবং নেডার চেয়ারম্যান শ্রী হিমন্ত বিশ্ব শর্মা সহ সকলকে ধন্যবাদ জানান শ্রী শাহ। 

রিয়াং শরণার্থী সমস্যার নিরসনে কেন্দ্রীয় সরকারের বৈঠক। ছবি : সংবাদমাধ্যম।
 নতুন চুক্তির ফলে রাজ্যে আশ্রয় নেওয়া ৫,৪০০ রিয়াং পরিবারের ৩৪ হাজার উদ্বাস্তুদের স্থায়ী পুনর্বাসন হিসাবে কেন্দ্রীয় সরকার ৬০০ কোটি টাকা বরাদ্দ করেছে। প্রতি পরিবার পিছু এককালীন ৪ লক্ষ টাকার ফিক্সড্‌ ডিপোজিট করা হবে, যা দু'বছর পর নগদে পাওয়া যাবে। তাছাড়া উ'বছর যাবত প্রতিটি পরিবারকে বিনামূল্যে রেশন ছাড়াও মাসিক ৫০০০ টাকা করে আর্থিক সহায়তাও করা হবে। এছাড়া রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে দেড় গণ্ডা করে জায়গার উপর ১.৫ লক্ষ টাকা ব্যয়ে গৃহনির্মাণ করে দেওয়া হবে। যে সকল শরণার্থী মিজোরাম যেতে আগ্রহী, তাদেরকেও মিজোরামে উল্লিখিত একই সুবিধা দেওয়া হবে। 






কোন মন্তব্য নেই